প্রচ্ছদ

খালেদা জিয়ার অসুস্থতার আবর্তেই ঘুরপাক খাচ্ছে বিএনপির রাজনীতি : তথ্যমন্ত্রী

০২ এপ্রিল ২০১৯, ০৯:২৭

সোনালী সিলেট
খালেদা জিয়ার অসুস্থতার আবর্তেই ঘুরপাক খাচ্ছে বিএনপির রাজনীতি : তথ্যমন্ত্রী

সোনালী সিলেট ডেস্ক ::: তথ্যমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার অসুস্থ্যতার আবর্তেই ঘুরপাক খাচ্ছে বিএনপির রাজনীতি।
তিনি বলেন,‘বিএনপি নেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার হাঁটুর ব্যথা, কোমরের ব্যথাসহ অসুস্থতার আবর্তেই বিএনপি ও ঐক্যফ্রন্টের রাজনীতি ঘুরছে।’
ড. হাছান মাহমুদ আজ সন্ধ্যায় বন্দর নগরী চট্টগ্রামের ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউট মিলনায়তনে মুক্তিযুদ্ধের সাব-সেক্টর কমান্ডার ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন স্বাধীনতা পুরস্কার পাওয়ায় তাকে দেয়া এক গণসংবর্ধনা অনুষ্ঠানে এ কথা বলেন।
আওয়ামী লীগের সভাপতিমন্ডলীর সদস্য ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন রাষ্ট্রের সর্বোচ্চ সম্মাননা স্বাধীনতা পদক পাওয়ায় চট্টগ্রাম মহানগর, উত্তর ও দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগ এই গণসংবর্ধনার আয়োজন করে।
চট্টগ্রাম উত্তর জেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এবিএম ফজলে করিম চৌধুরী এমপি’র সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এই গণসংবর্ধনা অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন সংবর্ধিত অতিথি ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন এমপি, চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মাহতাব উদ্দিন চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন, সংসদ সদস্য মাহফুজুর রহমান মিতা, ওয়াসিক আয়শা খাঁন ও খদিজাতুল আনোয়ার সনি, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. ইফতেখার উদ্দিন চৌধুরী, চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. রফিকুল আলম, দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোসলেম উদ্দিন আহমেদ এবং উত্তর জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আবদুস সালাম।
অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মাফজুর রহমান।
বিএনপি নেত্রী বেগম খালেদা জিয়া ও ওই দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর জল ঘোলা করে খান বলে মন্তব্য করে তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান বলেন, বেগম খালেদা জিয়াকে মেডিকেল বোর্ডের পরামর্শক্রমে উন্নত চিকিৎসার জন্য আজ সোমবার বঙ্গবন্ধু মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় কলেজে স্থানান্তর করা হয়েছে। একমাস আগে থেকেই সেখানে খালেদা জিয়ার জন্য দুটি কেবিন বরাদ্দ রাখা আছে।
তিনি বলেন, বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইউনাইটেড হাসপাতাল ছাড়া খালেদা জিয়ার চিকিৎসা করাবেন না বলে স্থির করেছিলেন। কিন্তু শেষ পর্যন্ত খালেদা জিয়া আজকে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে চিকিৎসা নেয়ার জন্য যান।
তিনি আরো বলেন, গাধা যেমন জল ঘোলা করে খায়, তেমনি মির্জা ফখরুল ও তাদের নেত্রীর ক্ষেত্রেও তাই ঘটেছে।
ড. হাছান বলেন, আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের জীবন মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে তাকেও ইউনাইটেড কিংবা স্কয়ার হাসপাতালে নেয়া হয়নি। বঙ্গবন্ধু মেডিকেলেই নিয়ে যাওয়া হয়েছে। সেখানে তাকে বিশ্বমানের চিকিৎসা হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন সিঙ্গাপুর ও ভারত থেকে আসা বিশ্ববিখ্যাত চিকিৎসকরা। আবার আজকে মির্জা ফখরুল কথা ঘুরিয়ে বলেছেন, সেখানে যেন ‘ভালো’ চিকিৎসা হয়।
তারেক জিয়ার মামলা নির্ভরতা কমিয়ে বিএনপিকে গণমুখী রাজনীতি করার আহবান জানিয়ে তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান আরো বলেন, অর্থনীতি, সামাজিক ও স্বাস্থ্যসহ বিভিন্ন সূচকে এগিয়ে যাচ্ছে বাংলাদেশ।
তিনি বলেন,আমাদের দেশে এখন মাথাপিছু আয় হচ্ছে ১৯’শ ৯ ডলার। ক’দিন পরে সেটা দুই হাজার ডলার ছাড়িয়ে যাবে। মির্জা ফখরুল যাই বলুক না কেন, পাকিস্তানের টেলিভিশনে তাদের বুদ্ধিজীবিরা আক্ষেপ করে বলেছেন বাংলাদেশ সমস্ত কিছুতে পাকিস্তানকে পেছনে ফেলে অনেকদুর এগিয়ে গেছে।
তথ্যমন্ত্রী বলেন, বঙ্গবন্ধু যুদ্ধবিধ্বস্থ বাঙালির হাল ধরেছিলেন। প্রায় তিন কোটি শরণার্থীকে বঙ্গবন্ধু দেশে ফিরিয়ে এনে সুশৃঙ্খলভাবে দেশ পরিচালনা করতে শুরু করেছিলেন। কিন্তু পচাত্তরের ১৫ আগস্টের ভয়াল রাত বাঙালির স্বপ্ন ভেঙে দিয়েছে। বঙ্গবন্ধু চলে গেছেন কিন্তু তার কন্যা ও তার আদর্শে পরিচালিত নেতা-কর্মীদের হাত ধরেই বাংলাদেশ এগিয়ে যাচ্ছে।
ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন বলেন, স্বাধীনতা পুরস্কার এটা আমার অর্জন নয় শুধু এটা পুরো চট্টগ্রাম বাসীর সম্মান।
তিনি বলেন, এই পুরস্কারে প্রাপ্ত তিন লাখ টাকা ও আমার ব্যক্তিগত ফান্ড থেকে আরো সাত লাখ টাকা দিয়ে দশটি অটিজম প্রতিষ্টানে অটিস্টিক ছেলেমেয়েদের কল্যাণে কাজ করে যাব।



সংবাদটি 21 বার পড়া হয়েছে.সংবাদটি ভাল লাগলে শেয়ার করুন
0Shares