প্রচ্ছদ

একটি জামা একটি হাসির বিনিময়ে

২৫ মে ২০১৯, ১২:৩৮

সোনালী সিলেট
একটি জামা একটি হাসির বিনিময়ে

সোনালী সিলেট ডেস্ক ::: টাকা দিয়ে নয়, শুধুমাত্র একটি হাসির বিনিময়ে ‘স্বপ্নের দোকান’ থেকে নতুন জামা কাপড় ক্রয় করেছেন একদল পথশিশু। ব্যতিক্রমধর্মী উদ্যোগে হবিগঞ্জের সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের মাঝে ঈদের জামা কাপড় বিতরণ করেছে ‘সিডিপি স্বপ্নের দোকান’ এর সেচ্চাসেবকরা।

শনিবার (২৫ মে) সকাল ১১টা থেকে হবিগঞ্জ বাসষ্ট্যান্ডে ‘সিডিপি স্বপ্নের দোকান’ নামে একটি ভ্রাম্যমান দোকানে বিনামূল্যে পথশিশুদের কাছে ঈদের জামা কাপড় বিক্রি করা হয়।

আয়োজক সূত্রে জানা গেছে, স্বপ্নের দোকানের স্বেচ্ছাসেবকরা পথশিশুদেরকে সর্বোচ্চ কাস্টমার সার্ভিস প্রদান করেছেন। এখান থেকে পথশিশুরা সাধারণ দোকানের মতোই জামাকাপড় নিজের পছন্দমতো ক্রয় করেছেন বিনামূল্যে। একটি জামার মূল্য হিসেবে একটি শিশুর হাসি নিয়েছেন বলে জানান আয়োজকরা।

স্বপ্নের দোকান হবিগঞ্জ শাখায় ৪৮ জন মেয়ে বাচ্চা এবং ২৫ জন ছেলে বাচ্চাকে ঈদের কাপড় দেওয়া হয়েছে। যাদের জামা গায়ে লাগেনি এরকম ১০জন কে ১০০টাকা করে দেওয়া হয়েছে।

স্বপ্নের দোকান হবিগঞ্জ শাখার মালিক ছিলেন, সানজানা শিরীন। সাথে ছিলেন কিষান, শিমু, কামরুল, আইরিন, তানিয়া, লিজবা।

স্বপ্নের দোকানের হবিগঞ্জ শাখার এবারের মালিক সানজানা শিরীন বলেন, ঈদের আনন্দ সবার মাঝে সমান ভাবে ছড়িয়ে দিতে আমাদের এই ক্ষুদ্র প্রয়াস। সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের অনেকেই জামা কাপড় দেন। তারা নতুন জামা পেলেও নিজের পছন্দমত নতুন জামা নিতে পারে না। অনেকেই আবার এসব জামা কাপড় পেয়েও খুশি হয় কারণ অনেকই তাদেরকে করুনা করে কাপড় দেন সেটা তারা বুঝতে পারে। তাই আমরা সাধারণ দোকনগুলোর মতই এই দোকানে কাপড় বিক্রি করেছি তাদের কাছে । বিক্রি করলে যেহেতু মূল্য দিতে হয় তাই একটি জামার বিনিময়ে আমরা একটি হাসি নিয়েছি।

কমিউনিটি ডেবলাপমেন্ট ফর পেইস (সিডিপি) ও স্থানীয় সেচ্চাসেবিদের সহযোগিতায় দেশব্যাপী ২৬ টি স্থানে চলেছে স্বপ্নের দোকান।



সংবাদটি 19 বার পড়া হয়েছে.সংবাদটি ভাল লাগলে শেয়ার করুন
0Shares